রাজনৈতিক

মানুষ আগ্নেয়গিরির মতো ফুঁসে উঠেছে: মির্জা ফখরুল

বিএনপির সমাবেশে ঘিরে বিভিন্ন স্থানে হামলার নিন্দা জানিয়ে দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, ১৫ বছর ধরে মামলা বহু বহু দিয়েছে। বহু মানুষ গুম করেছে হত্যা করেছে নির্যাতন করেছে কিন্তু রোখা যায়নি। মানুষ এখন আগ্নেয়গিরির মতো ফুঁসে উঠছে এবং উঠবে আরো। এর মাধ্যমেই এ সরকারের পতন হবে,যেভাবেই হোক পতন ঘটাতে হনে এবং জনগণের বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠিত হবে।’
বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, মানুষ আগ্নেয়গিরির মতো ফুঁসে উঠেছে। এর মধ্যদিয়েই বর্তমান সরকারের পতন ঘটাতে হবে। বুধবার (১৬ নভেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবে এক অনুষ্ঠানে এ হুঁশিয়ারি দেন তিনি।
আজ বুধবার রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে মাওলানা আবদুল হামিদ খান ভাসানীর ৪৬তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে এক আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন। বিএনপির উদ্যোগে ভাসানীর মৃত্যুবার্ষিকী পালন এ জাতীয় কমিটি গঠন করা হয়েছে। দুদিনব্যাপী কর্মসূচির আজ ছিল প্রথম আলোচনা সভা।

জাতির অস্তিত্ব রক্ষা করতে হবে জানিয়ে ফখরুল বলেন, বাংলাদেশের যে পর্যায় আছে, এ সময়ে মওলানা ভাসানীর ত্যাগকে অনুসরণ করলেই এগিয়ে যাওয়া সম্ভব বলে মনে করেন। বিএনপির এ লড়াই শেষ অস্তিত্বের লড়াই; এ লড়াইয়ে জিততে হলে ভাসানীকে অনুসরণ করতে হবে বলেন মির্জা ফখরুল।

বিএনপির সমাবেশে সাধারণ মানুষ অংশ নিচ্ছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, জনগণের অধিকার রক্ষায় কাজ করনো আমরা তাই এ ক্ষেত্রে এই নিয়মে এগিয়ে গেলে বিএনপি সফল হবেই।

বিএনপির নেতা মির্জা ফখরুল বলেন, আওয়ামী লীগ ভীতু বলেই শান্তিপূর্ণ সমাবেশে আসা সব নেতাকর্মীদের গ্রেফতার করছে,
এতে বিএনপি মহাসচিব ফখরুল আলমগীর আওয়ামী লীগকে উদ্দেশ্য করে বলেন, ‘এরা কতটা কাপুরুষ দেখেন। প্রতিটা সমাবেশ হচ্ছে শান্তিপূর্ণ, কোথাও কোনো সমস্যা হচ্ছে না। এর মধ্যেও তারা আমাদের ৪০০ এর বেশি মানুষকে গ্রেফতার করেছে, মিথ্যা মামলা দিয়েছে , গায়েবি মামলা দিচ্ছে। এতে করে রোখা যাবে না আমাদের।

মির্জা ফখরুল বলেন, কঠিন লড়াই শুরু হয়েছে। এ লড়াইয়ে জয়ী হতে হলে ভাসানীকে প্রতিমুহূর্তে স্মরণ করতে হবে আমাদের।
এখন রাজনীতি বদলে গেছে। আগেরমর আর রাজনীতি নাই একটা নষ্ট রাজনীতির সময় চলছে। এ সময়ে মাওলানা ভাসানী কে স্মরণ করা বা অনুসরণ করার লোক খুঁজে পাওয়া যাবে না। তাকে নিয়ে আরও গবেষণা করতে হবে আমাদের সবাইকে। তিনি উপমহাদেশের একজন কিংবদন্তি নেতা।

বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমানের সভাপতিত্বে সভায় আরও বক্তব্য দেন অধ্যাপক মাহবুব উল্লাহ, দলের ভাইস চেয়ারম্যান বরকত উল্লাহ বুলু, শামসুজ্জামান দুদু।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button